২ মাসের ব্যবধানে আটরায় পরপর দুটি ডাকাতি

654

এম হুসাইন সাব্বির: 

খুলনার  খানজাহান আলী থানার আটরা পুলিশ ফাঁড়ীর নিকটে ব্যবসায়ী মোঃ আব্দুর রহিম এবং তার মাতা পারুল বেগমকে বেধে রেখে দেশীয় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ অর্থ, স্বর্ণালঙ্গার, মোবাইলসহ প্রায় দেড় লক্ষ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে সঙ্গবদ্ধ মুখোশ পরিহিত দুষ্কৃতিকারীরা।

জানাযায়, গতকাল  শুক্রবার রাতে আনুমানিক ২ টার দিকে রহিমের বাড়ীর গেটের তালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে। কাঠের লাঠি দিয়ে ঘরের দরজায় আঘাত করে ১০/১২জন মুখোশধারী ব্যবাসায়ী আঃ রহিম এবং তার মায়ের হাত-পা এবং মুখ বেধে রহিমের স্ত্রীকে গলায় দেশীয় অন্ত্র ধরে ঘরের আলমেরীর মধ্যে রাখা নগদ ২৯ হাজার টাকা, দেড় ভরী স্বর্ণের অলংঙ্গার. দুইটি দামী মোবাইল এবং দুটি বিদেশী টর্চ লাইট লুট করে।

এসময় আঃ রহিম চিৎকার দেওয়ার চেষ্টা করলে মুখোশধারীরা তাদের হাতে থাকা দেশীয় অস্ত্র ছুরি দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে চলে যায়। ঘটনার পর সকালে পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তা, খানজাহান আলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ শফিকুল ইসলাম, আটরা গিলাতলা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান শেখ মনিরুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এ ব্যাপারে পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় মামলা করা হবে বলে আঃরহিম জানিয়েছেন।