পাঁচ উপদেষ্টার পুনঃনিয়োগ

514

মন্ত্রী পদমর্যাদায় প্রধানমন্ত্রীর পাঁচ উপদেষ্টা বহাল থাকলেন। পুরনো দায়িত্বেই তাদের রাখা হয়েছে। গত ৭ জানুয়ারি তাদের উপদেষ্টা পদে চাকুরি অবসান ও নিয়োগ করা হয়েছে। গতকাল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ওয়েব সাইটে পাঁচ উপদেষ্টার নিয়োগ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন আপলোড করা হয়েছে। এতে প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা পদে এইচ টি ইমাম, অর্থনৈতিক উপদেষ্টা পদে ড. মসিউর রহমান, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিষয়ক উপদেষ্টা পদে ড. গওহর রিজভী, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিষয়ক উপদেষ্টা পদে তৌফিক-ই-এলাহী চৌধুরী এবং প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা উপদেষ্টা পদে মেজর জেনারেল (অব.) তারিক আহমেদ সিদ্দিককে নিয়োগের কথা বলা হয়েছে। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী রুলস অব বিজনেস, ১৯৯৬-এর রুল ৩বি(১)- এ প্রদত্ত ক্ষমতাবলে ৭ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী এ নিয়োগ দিলেন। উপদেষ্টা পদে অধিষ্ঠিত থাকাকালীন তাঁরা মন্ত্রীর পদমর্যাদা, বেতন-ভাতা ও আনুষঙ্গিক সুযোগ-সুবিধা পাবেন। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, তবে একজন উপদেষ্টা এ তালিকার সঙ্গে যুক্ত হতে পারে।

নতুন সরকারের মন্ত্রিসভা শপথের এক সপ্তাহ পর গতকাল রোববার এই নিয়োগ দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, প্রধানমন্ত্রী রুলস অব বিজনেসের ক্ষমতা বলে ৭ জানুয়ারি ওই ব্যক্তিদের প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা নিয়োগ দিয়ে দায়িত্ব অর্পণ করেছেন। উপদেষ্টা পদে থাকাকালীন তাঁরা মন্ত্রীর পদমর্যাদা, বেতন-ভাতা ও আনুষঙ্গিক সুযোগ-সুবিধা পাবেন।

গত ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোট জয়ী হয়। এরপর ৭ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মন্ত্রিসভার ৪৭ জন সদস্য শপথ নেন, যাঁদের সবাই আওয়ামী লীগের। নতুন মন্ত্রিসভায় ৩১ জনই নতুন। এর মধ্যে ২৭ জন প্রথমবারের মতো মন্ত্রিসভায় যুক্ত হলেন। আর সদ্য বিদায়ী মন্ত্রিসভার ৪৮ জনের মধ্যে ৩৪ জনকেই বাদ দেওয়া হয়েছে। আর তফসিলের আগে পদত্যাগ করা ৪ টেকনোক্র্যাট মন্ত্রীর মধ্যে দুজনকে নতুন মন্ত্রিসভায় স্থান দেওয়া হলেও বাকি দুজন বাদ পড়েছেন।